এন্টি “ব্লু-হোয়েল” গেমসের ধারণা !

0
18

“ব্লু-হোয়েল” গেমস ! একটা আতঙ্কের নাম। কিন্তু এই গেমসের নিয়মেই কি করে একটি ভালো গেমস নির্মাণ করা যায় বা তরুণদের দ্বারা ভালো কিছু করানো যায় , তার একটা ধারণা দিলেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল ও পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. মোস্তাফিজুর রহমান রিপন।

তিনি তার আইডিয়া শেয়ার করেন।

তার দেয়া মূল্যবান আইডিয়াটা হুবহু তুলে ধরা হলো।

গেমটির নাম ‘বাইম মাছ’ গেম।

যেটি হবে পঞ্চাশ পর্বের। খেলবে আঠারো থেকে ত্রিশ বছরের ছেলে-মেয়েরা। কাজ হবে মানুষকে সাহায্য করা। যেমন- ভিক্ষুক, পথ শিশুকে পুরো এক প্লেট ভাত খাওয়াতে হবে। তারপর খালি প্লেটসহ ভিক্ষুকের ছবি আপলোড করলে পরের স্টেপ।

এক ব্যাগ রক্ত দিতে হবে। রক্ত দিচ্ছে এমন ছবি পোস্ট করলে পরের স্টেপ। সঙ্গে ব্লাড রিকুইজিশনের ছবি।
প্রথম স্টেপটা হবে বাসে সিট ছাড়া নিয়ে। ষাটোর্ধ্ব এক লোকের জন্য সিট ছাড়তে হবে। কথোপকথনের অডিও টেপ শুনাতে পারলে সেকেন্ড স্টেপ।

সেকেন্ড স্টেপটা হবে সহজ। দুটি গাছ লাগাতে হবে। ছবি দিয়ে থার্ড স্টেপ। যত স্টেপ বাড়তে থাকবে, খেলা তত কঠিন হবে।

যেমন কোনো প্রতিবন্ধী বালক হারিয়ে গেছে, তাকে খুঁজে দিতে হবে বা একজনকে মরণোত্তর কর্ণিয়া দানে সম্মত করতে হবে। এরপর পাঁচটি গোলাপ গাছ লাগাতে হবে, যেখানে পাঁচটি ভিন্ন রঙের ফুল ফুটে আছে।

Content Protection by DMCA.com

LEAVE A REPLY